করোনার ভ্যাকসিন উদ্ভাবিত হলেও এই ভাইরাস চিরতরে দূর হবে না।

আন্তর্জাতিক ডেস্ক | প্রকাশিত : ২২ জুলাই ২০২০ , ৪:২৪ অপরাহ্ণ

করোনা প্রতিরোধে ভ্যাকসিন উদ্ভাবিত হলেও এই ভাইরাস চিরতরে দূর হয়ে যাবে, সে সম্ভাবনা খুব বেশি নেই। এছাড়া করোনা সংক্রমণ দশক ধরে চলতে পারে। ওয়েলকাম ট্রাস্টের পরিচালক প্রফেসর স্যার জেরেমি ফারার হাউজ অব কমন্সের স্বাস্থ্যবিষয়ক কমিটির বৈঠকে এমন কথা বলেন। আগামী ২৫ ডিসেম্বরের আগে ব্রিটেনের পরিস্থিতি স্বাভাবিক হবে না বলেও উল্লেখ করেন তিনি।  খবর বিবিসির।

প্রফেসর স্যার জেরেমি ফারার এমন এক সময়ে এ কথা বললেন, যখন প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন আগামী বড়দিনের আগেই ব্রিটেনের পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়ে উঠবে বলে আশা করছেন।

এদিকে জাতিসংঘের ২০ জুলাইয়ের তথ্য অনুযায়ী, যে তিনটি প্রতিষ্ঠান করোনাভাইরাসের টিকা আবিষ্কারের চেষ্টায় তৃতীয় পর্যায়ে রয়েছে, সেগুলো হলো চীনের কোম্পানি সিনোভেক, অক্সফোর্ড ইউনিভার্সিটি ও ইউনিভার্সিটি অব মেলবোর্ন/মারডক চিলড্রেন্স রিসার্চ ইন্সটিটিউট।

আরো পড়ুন

প্রথম দফার পরীক্ষাগুলোয় সিনোভেকের টিকাটি বেশ সাফল্য দেখিয়েছে। এখন ব্রাজিল ও বাংলাদেশে কয়েক হাজার মানুষের ওপর টিকাটির তৃতীয় পর্যায়ের পরীক্ষা শুরু হতে যাচ্ছে।

শিম্পাঞ্জির শরীরের সাধারণ সর্দি-কাশি তৈরি করে, এমন একটি ভাইরাসের জিনগত পরিবর্তন করে অক্সফোর্ড ইউনিভার্সিটি তাদের টিকা তৈরি করা করছে। টিকাটি করোনাভাইরাসের সাথে সাদৃশ্যপূর্ণ হয়ে ওঠে এবং তখন শরীরের ভেতর রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বুঝতে পারে যে, কীভাবে করোনাভাইরাসকে আক্রমণ করে পরাস্ত করা যাবে। সম্প্রতি এর গবেষকরা ব্রাজিল ও দক্ষিণ আফ্রিকায় তৃতীয় পর্যায়ের পরীক্ষা শুরু করেছে। ভারতেও টিকাটির ক্লিনিকাল ট্রায়াল শুরুর প্রক্রিয়া চলছে।

অস্ট্রেলিয়ার মারডক চিলড্রেনস রিসার্চ ইন্সটিটিউট প্রায় ১০০ বছরের পুরনো একটি ফুসফুসের টিকা নিয়ে তৃতীয় পর্যায়ের পরীক্ষা চালাচ্ছে। এই টিকা সরাসরি কভিড-১৯ থেকে রক্ষা করে না, কিন্তু এটা শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়িয়ে দিতে পারে।

আন্তর্জাতিক
২২ জুলাই ২০২০