১০৪ ডিগ্রি জ্বরের মধ্যে পরীক্ষা দিয়েও জিপিএ-৫

জেলা প্রতিনিধি | প্রকাশিত : ০১ জুন ২০২০ , ৪:৩৬ অপরাহ্ণ

চারিদিকে শুধুই আনন্দ, এই আনন্দের পেছনে রয়েছে সাফল্যের গল্প। এসএসসি পরীক্ষায় কৃতিত্বপূর্ণ ফলাফল লাভ করায় এই আনন্দ আলো ছড়িয়ে পড়েছে নিতুদের ঘরে। তাদের আনন্দ অনুভূতিটা একটু বেশিই জানান দিচ্ছে-কারণ, ১০৪ ডিগ্রি জ্বর নিয়েও পাঁচটি বিষয়ে পরীক্ষা দিয়েও এ-প্লাস অর্জন করেছে মোনালিসা নিতু।
এ বছর এসএসসি পরীক্ষায় নড়াইল সরকারি বালিকা বিদ্যালয় থেকে বিজ্ঞান বিভাগে জিপিএ-৫ লাভ করেছে সে। জ্বরের কারণে অঙ্ক পরীক্ষাটা একটু খারাপ হওয়ায় গোল্ডেন এ-প্লাসটা হাতের মুঠোয় ধরা দেয়নি। সঙ্গতকারণে একটু আপসোস থেকেই যাচ্ছে নিতুর।

এ ব্যাপারে নিতুর ভাই ডেফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিয়ারিং বিষয়ের শিক্ষার্থী মির্জা গালিব সতেজ জানান, এসএসসি পরীক্ষার সময় হঠাৎ করে নিতুর জ্বর শুরু হয়। বাসায় ডাক্তার দেখানো হলেও সহজে জ্বর নামছিল না। ১০৪ ডিগ্রি পর্যন্ত জ্বর উঠেছিল। এই জ্বরের মধ্যেই পাঁচটি বিষয়ে পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে। ছোটবোন নিতুর সাফল্যে খুশি আমরা। নিতুর সহপাঠীরা জানায়, জ্বরের মধ্যে পরীক্ষা দিয়ে ভালো ফলাফল অর্জন করেছে সে।

আরো পড়ুন

এর আগে কালিয়া উপজেলার বি-কদমতলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকে প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী (পিএসসি) পরীক্ষায় গোল্ডেন এ প্লাস অর্জনসহ ট্যালেন্টপুল বৃত্তি লাভ করে নিতু। এছাড়া পিএসসিতেই কালিয়া উপজেলা পর্যায়ে মেধা তালিকায় দ্বিতীয় অর্জন করে নিতু। এদিকে নড়াইল সরকারি বালিকা বিদ্যালয় থেকে জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট পরীক্ষায় (জেএসসিতে) গোল্ডেন এ প্লাস অর্জন করেছিল সে। নিতু জানায়, পিএসসি থেকে এসএসসি পর্যন্ত তার এই ধারাবাহিক সাফল্যের পেছনে বাবা-মা, ভাই-ভাবীসহ পরিবারের সবার অবদান রয়েছে। এছাড়া শিক্ষকেরা গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখেছেন। ভবিষ্যতে ম্যাজিস্ট্রেট হয়ে দেশ ও জনকল্যাণে কাজ করতে চায়। নিতু নড়াইল সরকারি মহিলা কলেজপাড়ার বিএম নজরুল ইসলাম ও শবনম বেগমের মেয়ে। তিন ভাই ও এক বোনের মধ্যে নিতু সবার ছোট।

শিক্ষা
১ জুন ২০২০